ঢাকা , ২০শে জুলাই ২০১৮ ইং , ৫ই শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
প্রচ্ছদ » আন্তর্জাতিক » স্ত্রী ‘বস্তু’ বা ‘অস্থাবর সম্পত্তি’ নন, স্বামীর সঙ্গে থাকতে বাধ্য করা যায় না

স্ত্রী ‘বস্তু’ বা ‘অস্থাবর সম্পত্তি’ নন, স্বামীর সঙ্গে থাকতে বাধ্য করা যায় না

ভারতের সুপ্রিম কোর্ট

স্ত্রী বাড়ির কোনও ‘বস্তু’ বা ‘অস্থাবর সম্পত্তি’ নন। স্বামী তাঁকে সঙ্গে থাকার জন্য জোর করতে পারেন না। এক মহিলার করা ফৌজদারি মামলার প্রেক্ষিতে এমনই মন্তব্য করল সুপ্রিম কোর্ট।

স্বামীর সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদের আবেদন জানিয়ে সম্প্রতি শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হন এক মহিলা। মহিলার অভিযোগ, স্বামী তাঁর সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেন। নিষ্ঠুর ব্যবহারের জন্যই তাঁর সঙ্গে থাকতে চান না তিনি। কিন্তু স্বামী একসঙ্গে থাকার জন্য তাঁর উপর জোর খাটাচ্ছেন।

স্ত্রীর ‘স্পষ্ট অবস্থান’ বিবেচনা করে বিচারপতি মদন বি লোকুর এবং বিচারপতি দীপক গুপ্তকে নিয়ে গঠিত সুপ্রিম কোর্টের বেঞ্চ স্বামীকে তাঁর অবস্থান ‘পুনর্বিবেচনা’র পরামর্শ দেয়। ওই ব্যক্তির আইনজীবীকে বেঞ্চ বলে, যদি কোনও মহিলা না চান, তিনি স্বামীর সঙ্গে না-ও থাকতে পারে৷ সেক্ষেত্রে কোনও ব্যক্তি তাঁর স্ত্রীকে একসঙ্গে থাকার জন্য জোর করতে পারেন না৷ ওই মহিলার স্বামীর উদ্দেশে বিচারপতিদের প্রশ্ন, স্ত্রী যখন চাইছেন না, তখন তিনি কেন একসঙ্গে থাকতে চাইছেন? আইনজীবীকে বিষয়টি বোঝানোর পরামর্শও দিয়েছেন বিচারপতিরা।

ওই মহিলার আইনজীবী বেঞ্চকে বলেন, ‘‘আমরা ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪৯৮এ (বিবাহিত মহিলার প্রতি নিষ্ঠুরতা) ধারায় মামলা করলেও তা তুলে নিতে প্রস্তুত। কোনও খোরপোশ দিতে হবে না৷ তবে তার জন্য একটি শর্ত রয়েছে৷ আমার মক্কেল স্বামীর সঙ্গে থাকতে চান না৷’’

স্বামী ও স্ত্রী দু’জনেই শিক্ষিত৷ তাই তাঁরা মামলার পথে না গিয়ে বিষয়টি আদালতের বাইরেই মিটিয়ে নিতে পারেন বলে আগে জানিয়েছিল আদালত৷ কিন্তু মধ্যস্থতায় বিরোধ দূর হয়নি। পরে সুপ্রিম কোর্টকে জানানো হয়, সমস্যার সমাধান হয়নি৷ এরপরই আদালতের তরফে ওই মহিলার স্বামীকে হাজির হতে বলা হয়। জানানো হয়, স্ত্রী ‘অস্থাবর সম্পত্তি’ নন। মামলার পরবর্তী শুনানি ৮ অগস্ট। সূত্র: এবেলা