সন্তানের প্রথম জন্মদিন পালনে হাইকোর্টের দারস্থ বিত্তশালী বাবা

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ১৯ এপ্রিল, ২০১৮ ৪:৩৩ অপরাহ্ণ
বাংলাদেশের সর্বোচ্চ আদালত

বিত্তশালী বাবার এক বছর বয়সী শিশু সন্তান সৈয়দ ইয়াসিন আবদুল্লাহর প্রথম জন্মদিন আগামী ২৮ এপ্রিল। ছোট্ট এই শিশুটির এখনও বোঝারই ক্ষমতা হয়নি তার জন্মদিন পালনের বিষয়টি দেশের সর্বোচ্চ আদালত পর্যন্ত গড়িয়েছে।

২০১৫ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে মা-বাবার বিয়ে বিচ্ছেদের পর থেকে শিশুটি তার মায়ের জিম্মায় রয়েছে। ওই শিশুর বাবার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট বলেছেন, জন্মদাতা পিতা তার সন্তানকে কাছে রাখতে পারবেন শুধু জন্মদিনে, তবে শিশুটিকে বাবা কাছে পাবেন তার জন্মদিনের পরের দিন, তাও মাত্র ৬ ঘণ্টার জন্য।

জানা গেছে, শিশুটির বাবা রাজধানীর গুলশানের বাসিন্দা এ এম এইচ হাসানের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে গত ১১ এপ্রিল এ সংক্রান্ত বিষয়ে আদেশ দেন হাইকোর্ট, যার কপি গত ১৫ এপ্রিল হাতে পান আইনজীবীরা।

শিশুর বাবার আবেদনের শুনানি নিয়ে হাইকোর্টের বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি মো. আশরাফুল কামালের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

আদালতের শুনানিতে শিশুর বাবার পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট সাঈদ আহমেদ রাজা। অন্যদিকে মায়ের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট আইনুন নাহার সিদ্দিকী।

আদালতের আদেশে বলা হয়, ২৮ এপ্রিল শিশুর জন্মদিন হলেও বাবা পাবেন ২৯ এপ্রিল বিকেল ৪টায়। তবে শিশুর বাবা সরাসরি তার সন্তানকে নিজে নিতে পারবেন না; নিতে হলে মধ্যস্থতা লাগবে। মাধ্যস্থতা করবেন বিচ্ছেদ হওয়া মা এবং বাবার দুই পক্ষের আইনজীবীরা। মায়ের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আইনুন নাহার সিদ্দিকীর কাছ থেকে বাবার আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাঈদ আহমেদ রাজা শিশুটিকে বুঝে নেবেন। বাবা সন্তানকে নিজ জিম্মায় নিয়ে জন্মদিন পালন শেষে রাত ১০টার মধ্যে একই প্রক্রিয়ায় মায়ের আইনজীবীর কাছে শিশুটিকে ফেরত দেবেন।

আইনজীবী সূত্রে জানা গেছে, বন্ধু-বান্ধব ও আত্মীয়-স্বজন নিয়ে গুলশান ক্লাবে শিশুর জন্মদিনের অনুষ্ঠানটি করতে চায় বাবা।

এ এম এইচ হাসান ও তাসমিয়ার বিয়ে হয় ২০১৫ সালের ২ ফেব্রুয়ারি। ২০১৭ সালের মাঝামাঝি তাদের বিয়ে বিচ্ছেদের ঘটনা ঘটে। এর পর আদালতের দারস্থ হলে ২০১৭ সালের ২৩ অক্টোবর হাইকোর্ট নির্দেশ দেন শিশুটি মায়ের হেফাজতেই থাকবে। সেই থেকে গুলশানেই মায়ের কাছে আছে ইয়াসিন।

তাসমিয়া হাসানের আইনজীবী বলেন, ‘আগামী ২৯ এপ্রিল বিকেল ৪টায় আমার কাছ থেকে শিশুটিকে নিয়ে যাবেন শিশুটির বাবার আইনজীবী। ওই দিনই রাত ১০টার মধ্যে আবার আমার কাছে ফেরত দিতে হবে। আদালত এ আদেশই দিয়েছেন।’

সংশ্লিষ্ট আদালতের রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোতাহার হোসেন সাজু সাংবাদিকদের বলেন, বাবার অনুভূতির প্রতি শ্রদ্ধা দেখিয়ে শর্ত সাপেক্ষে শিশুটিকে নিয়ে গুলশান ক্লাবে জন্মদিন পালনের অনুমতি দিয়েছেন আদালত।