বিশ্ব ইজতেমা পালনের নির্দেশনা চেয়ে করা রিট খারিজ

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ২৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ৪:৫৮ অপরাহ্ণ
উচ্চ আদালত

তাবলিগ জামাতের সমন্বয়ে তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমা সম্পন্ন করার নির্দেশনা চেয়ে করা রিট উত্থাপিত হয়নি মর্মে খারিজ করে দিয়েছেন হাইকোর্ট।

আজ রোববার (২৭ জানুয়ারি) হাইকোর্টের বিচারপতি জেবিএম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে রিট আবেদনের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন অ্যাড. শাহ মো. নুরুল আমিন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোতাহার হোসেন সাজু।

এর আগে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট বেঞ্চের শুনানিতে বিশ্ব ইজতেমার সময়সূচি বিষয়ে উভয় পক্ষের সমঝোতা এবং সরকারের সিদ্ধান্তের বিষয়ে আদালতকে অবহিত করা হয়।

গত ২৩ জানুয়ারি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তাবলিগ জামাতের বিবাদমান দু’পক্ষকে নিয়ে বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। পরে সরকারের পক্ষ থেকে গণমাধ্যকে বিশ্ব ইজতেমার সময়সূচি জানানো হয়।

এর আগে গত ২২ জানুয়ারি রিটের শুনানি নিয়ে পরবর্তী শুনানির জন্য আজকের দিন ধার্য করেন। ২১ জানুয়ারি হাইকোর্টের একই বেঞ্চে রিটটি উপস্থাপন করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ইউনুস মোল্লা।

২২ তারিখ আদালতের শুনানির এক পর্যায়ে আদালত রিটকারীদের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘আপনারা নিজেরা দুই ভাগে বিভক্ত হলে দ্বীনের প্রচার করবেন কিভাবে? নিজেদের মধ্যে মারামারি করবেন আবার ইজতেমা পালনের জন্য আদালতে রিট করবেন, এটা লজ্জার। আগে নিজেরা সংশোধন হন, সুস্থ হন এবং নিজেদের মধ্যকার বিভেদ নিরসন করুন। তারপরই আপনাদের আবেদন শুনবো।’

রিট আবেদনে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সচিবসহ তিনজনকে বিবাদী করা হয়।