দিল্লিতে পুলিশকে পেটালেন আইনজীবী

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ৫ নভেম্বর, ২০১৯ ১১:৩৮ পূর্বাহ্ণ
পুলিশকর্মীকে মারধর করলেন এক আইনজীবী

ভারতে দিল্লির তিস হাজারি আদালতে সংঘর্ষের দু’দিনের মধ্যেই রাজধানীর সাকেত আদালতের বাইরে এক পুলিশকর্মীকে মারধর করলেন এক আইনজীবী। গত শনিবার তিস হাজারি আদালতের লক আপের সামনে এক গাড়ি রাখাকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়ান আইনজীবীরা। আহত হন ২৮ জন। ২০টি গাড়ি পুড়িয়ে দেওয়া হয়। ওই ঘটনার জেরে গতকালও গোটা দেশের পাশাপাশি দিল্লির নিম্ন আদালতগুলিতেও ধর্মঘটে শামিল হয়েছিলেন আইনজীবীরা।

আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়, সোমবার (৪ নভেম্বর) করকরদুমা জেলা আদালতের গেটে আইনজীবীদের জমায়েত হয়েছিল। সেখান থেকে পুলিশকর্মীদের বার করে দেওয়া হয়। র্মঘটকে সফল করতে আইনজীবীরা আম জনতার সঙ্গে তর্কাতকিতে জড়িয়ে পড়েন। আদালত চত্বরের বাইরে আমজনতাকে আইনজীবীদের মারধরের ভিডিয়োও সামনে এসেছে।

সাকেত আদালতের বাইরে পুলিশকর্মীকে মারধরের ঘটনার ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, মোটরবাইকের উপরে বসা এক পুলিশকর্মীকে মারধর করছেন এক আইনজীবী। প্রথমে ওই পুলিশকর্মীর পিঠে কনুই দিয়ে মারেন তিনি। তার পর পুলিশকর্মীটিকে চড় মারা হয়। পুলিশকর্মীটি কোনও ভাবে মোটর বাইকে চড়ে পালানোর চেষ্টা করলে তাঁর দিকে হেলমেট ছুড়ে মারেন ওই আইনজীবী। সেটি মোটরবাইকটিতে গিয়ে লাগে।

তিস হাজারির ঘটনার জেরে দিল্লি পুলিশ ও নিম্ন আদালতের আইনজীবীদের মধ্যে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে। শনিবারের ঘটনা নিয়ে দিল্লি হাইকোর্টে জরুরি শুনানির সময়ে দিল্লি পুলিশের ব্যবহারকে বিচার ব্যবস্থার উপর আঘাত হিসেবে তুলে ধরেছেন আইনজীবী সংগঠনের প্রতিনিধিরা।

দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীবাল আজ আইনজীবীদের সঙ্গে দেখা করেছেন।