৬৫ শতাংশ নারী নির্যাতন মামলার চূড়ান্ত তদন্ত প্রতিবদেন হয়নি


প্রকাশিত :০৬.১২.২০১৬, ২:০৪ অপরাহ্ণ

photo-1427633764গত ছয় বছরে দায়েরকৃত নারী নির্যাতন মামলার ৬৫ শতাংশেরই চূড়ান্ত প্রতিবেদন এখনও তৈরি হয়নি।

আজ মঙ্গলবার (০৬ ডিসেম্বর) রাজধানীর শিশু একাডেমিতে আয়োজিত ‘সমমর্যাদায় যৌথ জীবন’ শীর্ষক মেলায় ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেস্টিগেশন ডিভিশনের স্টল থেকে এ তথ্য জানা যায়। সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ মেলার উদ্বোধন করেন।

ডিএমপির সংশ্লিষ্ট বিভাগটির স্টল থেকে জানা যায়, ২০১১ সাল থেকে ২০১৬ সালের নভেম্বর পর্যন্ত ছয় বছরে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের আওতায় মোট মামলা হয়েছে ২ হাজার ৯০টি। এর মধ্যে ৭২৯টি মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেওয়া হয়েছে, বাকি ১ হাজার ৩৬১ মামলার তদন্ত প্রতিবেদন এখনও সম্পন্ন হয়নি, যা মোট মামলার প্রায় ৬৫ শতাংশ। তবে এসব মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদন যত দ্রুত সম্ভব প্রস্তুতের কাজ চলছে বলেও জানিয়েছে উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেসটিগেশন ডিভিশন সূত্র।

অনুষ্ঠানে ‘আমরাই পারি পারিবারিক নির্যাতন প্রতিরোধ জোটের’ চেয়ারপারসন সুলতানা কামাল বলেন, মুক্তিযুদ্ধের মূল কথা ছিলো মানুষ যাতে সমমর্যাদা নিয়ে দেশ এগিয়ে নিয়ে যেতে পারে। কিন্তু নারীদের জীবনে নির্যাতন যেন খুব সহজ একটি বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। স্বাধীন একটা দেশে এটা হতে পারে না। আমরা সবাই একটা বিষয়ে একমত যে মানব নির্যাতন চলবে না। মানব নির্যাতন এদেশে কাম্য নয়। নারী নির্যাতনমুক্ত দেশ গড়ে তুলতে হবে।

সমাজ কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ বলেন, আমাদের অন্তরে লালন করতে হবে, ‘ধর্ম যার যার রাষ্ট্র সবার’। ধর্মীয় অনুশীলন থাকলে আমরা কোনো অন্যায় করবো না। আগে নিজেদের মধ্যে আন্তরিকতা তৈরি করতে হবে। নারীদের প্রতি যাতে অন্যায় অবহেলা না হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

এ সময় ডিএমপির উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেসটিগেশন ডিভিশনের ডেপুটি পুলিশ কমিশনার ফরিদা ইয়াসমিন বলেন, আমরা আমাদের ডিভিশনের মাধ্যমে নারী নির্যাতনের শিকার বা নারী ও শিশু সংশ্লিষ্ট যে কোনো ভিকটিমকে সহায়তা করে থাকি। ২০০৯ সাল থেকে এ পর্যন্ত আমরা প্রায় ৪ হাজার ৯৯৯ জন ভিকটিমকে সহায়তা করেছি। সামনেও আরও সহায়তা দেওয়ার চেষ্টা করছি।

 

 
নগর প্রতিনিধি/ল’ইয়ার্সক্লাববাংলাদেশ.কম



ট্রেডমার্ক ও কপিরাইট © 2016 lawyersclubbangladesh এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Designed By Linckon