স্বামীর আগে হাঁটায় স্ত্রীকে তালাক!


প্রকাশিত :২২.০৮.২০১৭, ১২:৪৭ অপরাহ্ণ

saudi-divorceসৌদি আরবে তুচ্ছ একটি কারণকে কেন্দ্র করে স্ত্রীকে ডিভোর্স দিলেন স্বামী। দু’জনে এক সঙ্গে হাঁটছিলেন। স্বামী বারণ করার পরেও তাকে রেখে আগে আগেই হাঁটছিলেন স্ত্রী। আর এর জের ধরেই রাগে-ক্ষোভে স্ত্রীকে ডিভোর্স দিলেন স্বামী।

সৌদিতে সাম্প্রতিক সময়ে ডিভোর্সের সংখ্যা বিপজ্জনক হারে বাড়ছে। বড় ধরনের কোনো ঘটনার জন্য ডিভোর্সের ঘটনা খুব কমই হচ্ছে। বরং খুব ছোট ছোট ঘটনাকে কেন্দ্র করেই ডিভোর্স হচ্ছে।

অনেকেই এসব ঘটনার জন্য বিবাহিত দম্পতি বিশেষ করে নবদম্পতিকে বিশেষ পরামর্শ সেবা গ্রহণের আহ্বান জানিয়েছেন। পরামর্শ সেবা গ্রহণ করলে নিজেদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি কমে আসবে ফলে তুচ্ছ ঘটনায় ডিভোর্সের মতো ঘটনা ঘটবে না বলে মনে করছেন অনেকেই।

সৌদির আল ওয়াতান দৈনিকে জানানো হয়েছে, ওই ব্যক্তি তার স্ত্রীকে পেছনে পেছনে হাঁটতে বলেছিলেন। কিন্তু তার স্ত্রী বার বার তার আগে হাঁটছিলেন। এ কারণেই তিনি স্ত্রীকে ডিভোর্স দিয়েছেন।

এদিকে, অতিথিদের সামনে রান্না করা ভেড়ার মাথার মাংস রাখতে ভুলে যাওয়ায় স্ত্রীকে ডিভোর্স দিয়েছেন একজন। ডিভোর্স পাওয়া ওই নারী জানিয়েছেন, তার স্বামীর বন্ধুরা তাদের বাড়িতে খেতে এসেছিলেন। খাবার টেবিলে তিনি সব কিছুই রেখেছিলেন। শুধুমাত্র রান্না করা ভেড়ার মাথার মাংসই তিনি রাখতে ভুলে গিয়েছিলেন।

বন্ধুরা তাদের বাড়ি থেকে চলে যাওয়ার পরই স্বামী তাকে জানান যে, তার জন্যই বন্ধুদের কাছে তাকে অপমানিত হতে হয়েছে। সঙ্গে সঙ্গেই তিনি তার স্ত্রীকে ডিভোর্স দেন।

এছাড়া আরো একটি দম্পতির মধ্যে ডিভোর্স হয়েছে হানিমুনে গিয়ে স্ত্রী পায়ে নুপূর পড়েছিলেন সেই অপরাধে।

সৌদি আরবে বিয়ের অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন হামুদ আল সিমারি নামে এমন এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, দেশটিতে গত দু’বছরে ডিভোর্সের ঘটনা অনেক বেড়ে গেছে।

 

ল’ইয়ার্স ক্লাব বাংলাদেশ ডটকম রকমারি ডেস্ক



ট্রেডমার্ক ও কপিরাইট © 2016 lawyersclubbangladesh এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Designed By Linckon