দুর্নীতি মামলায় নওয়াজ শরীফের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন


প্রকাশিত :১৯.১০.২০১৭, ১০:৪৫ অপরাহ্ণ

Nowaj20170322135633

পানামা পেপারস ফাঁসের প্রেক্ষাপটে করা দুর্নীতি মামলায় দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ।

বৃহস্পতিবার নওয়াজ শরীফ, তার মেয়ে ও জামাতার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছে দেশটির দুর্নীতি বিরোধী আদালত। এই অভিযোগ প্রমাণিত হলে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে কারাগারে যেতে হতে পারে।

পাকিস্তান সরকারের একজন জেষ্ঠ্য কর্মকর্তা এএফপিকে এ তথ্য জানিয়েছেন।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে ওই কর্মকর্তা জানিয়েছেন, আদালত নওয়াজ শরীফ, তার মেয়ে মরিয়ম ও তার জামাইকেও লন্ডনে তাদের সম্পত্তি সংক্রান্ত মামলায় দোষী সাব্যস্ত করেছে।

নওয়াজ শরীফের আইনজীবী এক আবেদনে সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীকে নির্দোষ বলে দাবী করেছেন। নওয়াজের মেয়েও নিজেকে নির্দোষ দাবী করে ইসলামাবাদের ওই আদালতে আবেদন করেছেন।

গত জুলাই মাসে অপ্রদর্শিত আয় সংশ্লিষ্ট অভিযোগে সুপ্রিম কোর্ট নওয়াজ শরীফকে প্রধানমন্ত্রী পদে অযোগ্য ঘোষণার পরে তিনি পদত্যাগ করেন। কিন্তু তিনি ক্ষমতাসীন দল পাকিস্তান মুসলিম লীগ (নওয়াজ) এর উপর নিজের কর্তৃত্ব বহাল রেখেছেন। পাকিস্তানের ন্যাশনাল অ্যাকাউন্টেবিলিটি ব্যুরো নওয়াজ শরীফ, কন্যা মরিয়ম ও জামাতা মোহাম্মদ সফদারের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছে।

২০১৬ সালে পানামাভিত্তিক ল ফার্ম মোসাক ফনসেকার ফাঁস হওয়া নথিতে দেখা যায়, নওয়াজ শরীফ এবং তার মেয়ে ও দুই পুত্র ব্রিটিশ ভার্জিন আইল্যান্ডে অফশোর হোল্ডিং কোম্পানি খুলেছেন এবং সেই কোম্পানির মাধ্যমে লন্ডনে বিলাসবহুল ফ্ল্যাট কিনেছেন। এই অভিযোগের প্রেক্ষিতেই পাকিস্তানের সুপ্রিম কোর্ট তাকে অযোগ্য ঘোষণা করে এবং ন্যাশনাল অ্যাকাউন্টেবিলিটি ব্যুরোকে তার বিরুদ্ধে তদন্ত করে বিচার করার নির্দেশ দেয়। সুপ্রিম কোর্ট নিয়োজিত আরেকটি প্যানেল বলেছে, নওয়াজ পরিবারের আয়ের সঙ্গে তাদের সম্পদের পরিমাণে অসংগতি রয়েছে। মরিয়ম ও তার ভাইদের বিরুদ্ধে নথি জালিয়াতি করে ভুয়া অফশোর কোম্পানি গঠন করে লন্ডনে ফ্ল্যাট কেনার অভিযোগ করে প্যানেল।

নওয়াজ শরীফ বর্তমানে লন্ডনে ক্যান্সারের চিকিৎসাধীন তার স্ত্রী কুলসুমের কাছে অবস্থান করছেন।

 



ট্রেডমার্ক ও কপিরাইট © 2016 lawyersclubbangladesh এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Designed By Linckon