ব্যারিস্টার মইনুলের জামিন বাতিলকারী বিচারকের শাস্তি দাবি

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ৩:৪৬ অপরাহ্ণ
ব্যারিস্টার এএম মাহবুব উদ্দিন খোকন

সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের মুক্তির দাবি জানিয়ে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সম্পাদক ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেছেন, অবিলম্বে ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের জামিন বাতিলকারী ম্যাজিস্ট্রেটের বিচারিক ক্ষমতা প্রত্যাহার এবং তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জোর দাবি জানাচ্ছি।

আজ বৃহস্পতিবার (৫ সেপ্টেম্বর) সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির অডিটোরিয়ামে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ দাবি করেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেন, সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি ও সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনকে জামিনযোগ্য মামলায় জামিন না দিয়ে কারাগারে পাঠানোর তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করছি এবং অবিলম্বে তার মুক্তির দাবি জানাচ্ছি।

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সম্পাদক বলেন, ‘তিনি (ব্যারিস্টার মইনুল হোসেন) আইনের প্রতি শ্রদ্ধা দেখিয়ে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী, আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করেন। জামিনযোগ্য মামলায় তাকে জামিন না দিয়ে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। যা খুবই দুঃখজনক। আমরা মনে করি ফরমায়েশী আদেশের কারণে এটি করা হয়েছে।’

মাহবুব উদ্দিন খোকন আরও বলেন, ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনকে সম্পূর্ণ বে-আইনিভাবে জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। সব আইনজীবীর জন্য এটা লজ্জার ব্যাপার। আমরা অবিলম্বে ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের জামিন বাতিলকারী ম্যাজিস্ট্রেটের বিচারিক ক্ষমতা প্রত্যাহার এবং তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জোর দাবি জানাচ্ছি।

প্রধান বিচারপতির প্রতি আহ্বান জানিয়ে ব্যারিস্টার খোকন বলেন, রাষ্ট্রের তিনটি অঙ্গের অন্যতম হলো- বিচার বিভাগ। ফরমায়েশি আদেশের জন্য একদিন বিচার বিভাগকে কঠোর পরিণতি ভোগ করতে হবে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করে ফরমায়েশি আদেশ থেকে দেশের জনগণকে মুক্তি দিন।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন সুপ্রিম কোর্ট বারের সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন, অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী, জগলুল হায়দার আফ্রিক, সুপ্রিম কোর্ট বারের সাবেক সম্পাদক ব্যারিস্টার বদরুদ্দোজা বাদল প্রমুখ।