নামের মিল থাকায় কারাগারে নিরীহ ব্যক্তি, মুক্তি চেয়ে হাইকোর্টে রিট

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ৫ জুলাই, ২০২০ ২:১৮ অপরাহ্ণ
মো. সালাম ঢালি

নামে আংশিক মিল থাকায় সাজাপ্রাপ্ত পলাতক এক আসামির পরিবর্তে নিরীহ এক ব্যক্তিকে চোরাচালান মামলায় আটক রাখার ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণে নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট আবেদন করা হয়েছে।

আজ রোববার (৫ জুলাই) সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মোহাম্মদ শিশির মনির এ রিট দায়ের করেন।

রিটে নির্দোষ সালাম ঢালীকে দ্রুত মুক্তি এবং এ ঘটনায় জড়িত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যব্স্থা গ্রহণের নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে, যথাযথ ক্ষতিপূরণ চেয়েছেন আইনজীবী।

‘নামের মিল, আসল আসামির পরিবর্তে জেল খাটছেন মুদি দোকানি’ শিরোনামে একটি জাতীয় দৈনিকে প্রতিবেদন প্রকাশ পায়। ওই প্রতিবেদন সংযুক্ত করে আদালতে রিট দায়ের করা হয়েছে বলে জানান রিটকারী আইনজীবী।

রিটটি আগামীকাল সোমবার (৬ জুলাই) হাইকোর্টের বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের ভার্চ্যুয়াল বেঞ্চে শুনানি হতে পারে বলে জানিয়েছেন ওই আইনজীবী।

প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয় যে, ২০০৫ সালের একটি মামলায় শফিজ উদ্দিনের ছেলে মো. আব্দুস সালাম ২০০৯ সালের ৩০ জুলাই বাগেরহাট সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কর্তৃক দুই বছরের সাজাপ্রাপ্ত হন। এই মামলায় তিনি জামিন নিয়ে পালাতক আছেন। সাজা পরোয়ানার অংশ হিসেবে ২০২০ সালের ১১ মার্চ খুলনার সোনাডাঙ্গা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) সঞ্জিত কুমার মন্ডল মফিজ উদ্দিন ঢালীর ছেলে মো. সালাম ঢালিকে তার বাসা থেকে গ্রেফতার করেন। এখন পর্যন্ত তিনি এই মামলায় কারাগারে আছেন।