চার বিজিবি সদস্যের মুক্তিযোদ্ধা গেজেট বাতিলের সিদ্ধান্ত স্থগিত

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ১৩ জুলাই, ২০২০ ৮:২৬ অপরাহ্ণ
উচ্চ আদালত

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)-এর চার সদস্যদের মুক্তিযোদ্ধা গেজেট বাতিল নিয়ে সরকারের সিদ্ধান্ত স্থগিত করেছে হাইকোর্ট।

আজ সোমবার (১৩ জুলাই) হাইকোর্টের বিচারপতি জে.বি.এম হাসানের ভার্চ্যুয়াল বেঞ্চ এ স্থগিতাদেশ দেন।

আদালতের রিটের পক্ষে শুনানি করেন, অ্যাডভোকেট সাবরিনা জেরিন, ব্যারিস্টার আব্দুল কাইয়ুম ও অ্যাডভোকেট এ কে এম আশরাফুল আলম।

প্রসঙ্গত, ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বরের পর যারা বিভিন্ন বাহিনীতে যোগ দেওয়ার পর মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে গেজেটে অন্তর্ভূক্ত হয়েছিলেন তাদের মধ্যে থেকে গত ৭ জুন এক হাজার ১৮১ জনের মুক্তিযোদ্ধা গেজেট বাতিল করেছে সরকার।

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় জারিকৃত ওই আদেশ অনুযায়ী, এই ব্যক্তিদের সন্তান বা নাতি, নাতনীরা যদি তাদের মুক্তিযুদ্ধ সনদ বা গেজেট ব্যবহার করে কোনো চাকরিতে কর্মরত থাকেন তবে তাদের সেই চাকরিও বহাল থাকবে না।অন্যদিকে মহান মুক্তিযুদ্ধের পর বিভিন্ন সময়ে নেওয়া এই সনদ ব্যবহার করে যারা ভাতা ও অন্যান্য সুবিধা নিয়েছেন তা ফেরত দিতে হবে।

যাদের সনদ বাতিল হয়েছে তার মধ্যে বিমান বাহিনীর ৪৭ জন এবং বিজিবির ১ হাজার ১৩৪ জন সদস্য রয়েছেন।

পরে সরকারের ওই সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে শরীয়তপুরের আবুল কাশেম, মনোয়ার, সিরাজুল, সিকান্দার আলী হাইকোর্টে রিট করেন। তারা সকলেই বিজিবি সদস্য।

ওই আবেদনের শুনানি নিয়ে আদালত আজ উপরোক্ত আদেশ দেন।

আদেশের বিষয়টি ল’ইয়ার্স ক্লাব বাংলাদেশ ডটকমকে নিশ্চিত করে অ্যাডভোকেট আশরাফুল আলম জানান, সরকারের ওই সিদ্ধান্তের শুধু রিটকারী বিজিবি সদস্যদের অংশটুকু স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট।