চেয়ারম্যানের মৃত্যুতে বার কাউন্সিলের শোক

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ৩:৫৭ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের চেয়ারম্যান ও রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ কর্মকর্তা অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছে বার কাউন্সিল। সংস্থার ওয়েবসাইটে বার কাউন্সিলের ভাইস চেয়ারম্যান স্বাক্ষরিত এক শোক বার্তা এ তথ্য জানা গেছে।

শোক বার্তায় বলা হয়, তাঁর (মাহবুবে আলম) মৃত্যুতে বার কাউন্সিল পরিবার গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করছি। সংস্থার নির্বাহী কমিটির চেয়ারম্যান এবং অন্যান্য কমিটির চেয়রাম্যানসহ নির্বাচিত সদস্যবৃন্দ ও কর্মকর্তা-কর্মচারীর পক্ষ থেকে মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করছি এবং তাঁর শোকসন্তপ্ত পরিবার-পরিজনের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।’

সুপ্রিম কোর্টের জ্যেষ্ঠ আইনজীবী মাহবুবে আলম ২০০৯ সালে ১৩ জানুয়ারি বাংলাদেশের অ্যাটর্নি জেনারেল পদে নিয়োগপ্রাপ্ত হন এবং তখন থেকেই পদাধিকারবলে বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেন।

প্রসঙ্গত, রোববার (২৭ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান মাহবুবে আলাম। সন্ধ্যা ৭টা ২৫ মিনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাকে মৃত ঘোষণা করে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭১ বছর।

গত ৩ সেপ্টেম্বর রাতে অ্যাটর্নি জেনারেল শরীরে জ্বর অনুভব করেন। পরদিন সকালে করোনা টেস্ট করালে রিপোর্ট পজেটিভ আসে। সে দিনই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় তাকে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গত ১৮ সেপ্টেম্বর অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে আইসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। তবে ২০ সেপ্টেম্বর তার করোনামুক্তি ঘটার কথা জানায় পরিবার।

সুপ্রিম কোর্টের এ জ্যেষ্ঠ আইনজীবী ১৯৯৮ সালের ১৫ নভেম্বর থেকে ২০০১ সালের ৪ অক্টোবর পর্যন্ত বাংলাদেশের অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। মাহবুবে আলম সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির ১৯৯৩-৯৪ সালে সম্পাদক ও ২০০৫-২০০৬ সালে সভাপতি নির্বাচিত হন। ২০০৯ সালের ১৩ জানুয়ারি থেকে বাংলাদেশের অ্যাটর্নি জেনারেল হিসেবে নিয়োগপ্রাপ্ত হয়ে তিনি দায়িত্ব পালন করে আসছেন।