বিএনপির আইন সম্পাদককে গ্রেপ্তার ও হয়রানি না করার নির্দেশ

প্রতিবেদক : ল'ইয়ার্স ক্লাব বাংলাদেশ
প্রকাশিত: ২৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ১১:৫৭ পূর্বাহ্ণ
বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট

বিদেশ থেকে ফেরার পর বিএনপির নির্বাহী কমিটির আইন বিষয়ক সম্পাদক ও সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার কায়সার কামালকে গ্রেপ্তার ও হয়রানি না করার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে বুধবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি ভীষ্মদেব চক্রবর্তীর সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

একই সঙ্গে, উপযুক্ত আদালতে আত্নসমর্পন করে জামিন নিতে তাকে এক মাস সময় দেয়া হয়েছে। এ সময় পর্যন্ত তকে গ্রেপ্তার ও হয়রানি করা যাবে না বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী ব্যারিস্টার আতিকুর রহমান।

জানা যায়, গত ২০ ডিসেম্বর বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বিশেষ জজ আদালত-৫ থেকে বাসায় ফেরার পথে হাইকোর্ট মাজার গেট এলাকায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপি কর্মীদের সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় নাশকতার অভিযোগে ব্যারিস্টার কায়সার কামালের বিরুদ্ধে গত ২০ ও ২১ ডিসেম্বর রমনা থানায় দুটি মামলা দায়ের হয়েছে । কিন্তু ঘটনার সময় তিনি দেশে ছিলেন না। তার অসুস্থ পিতার উন্নত চিকিৎসার জন্য গত ১৬ ডিসেম্বর থাইল্যান্ডে গিয়েছেন। এ অবস্থায় যাতে নির্বিঘ্নে দেশে ফিরতে পারেন ও আইনী আশ্রয় নিতে পারেন, সেজন্য কায়সার কামালের পক্ষে ব্যারিস্টার ফাইয়াজ জিবরান ২৬ ডিসেম্বর হাইকোর্টে রিট করেন। বুধবার এ রিটের শুনানি হয়।

পরে আইনজীবী আতিকুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, মামলা দুটির কারনে তার বাংলাদেশে আসা অনিশ্চিত হয়ে পড়ে। এ অবস্থায় দেশে ফেরা নির্বিঘ্ন করতে আদালতে রিট দায়ের করি। রিটের শুনানি নিয়ে আদালত তাকে গ্রেপ্তার ও হয়রানি না করতে নির্দেশ দিয়েছেন। একই সঙ্গে উপযুক্ত আদালত থেকে জামিন নিতে তাকে এক মাস সময় দেয়া হয়েছে।

সুপ্রিমকোর্ট প্রতিনিধি/ল’ইয়ার্স ক্লাব বাংলাদেশ ডটকম