চকবাজার ও বনানীতে নিহতদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ কেন নয় : হাইকোর্ট

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ১ এপ্রিল, ২০১৯ ৫:২৬ অপরাহ্ণ
উচ্চ আদালত

রাজধানীর পুরান ঢাকার চকবাজারের চুড়িহাট্টা এবং বনানীর এফ আর টাওয়ারে অগ্নিকাণ্ডে নিহতদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দিতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে অগ্নিকাণ্ড বা প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলার বিষয়গুলো পাঠ্যপুস্তকে অন্তর্ভুক্ত করতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, রুলে তাও জানতে চেয়েছেন আদালত।

এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে আজ সোমবার (১ এপ্রিল) বিচারপতি সৈয়দ রেফাত আহমেদ ও বিচারপতি মো. ইকবাল কবিরের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রুল জারি করেন।

এছাড়াও গুলশান এলাকায় ফায়ার স্টেশন স্থাপনের কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতেও রুল জারি করেছেন আদালত।

অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিপূরণসংক্রান্ত রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সচিব, গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয় সচিব এবং খাদ্য ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয় সচিব, ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন মেয়রসহ সংশ্লিষ্ট বিবাদীদের। আর দুর্যোগ মোকাবিলার বিষয়গুলো পাঠ্যপুস্তকে অন্তর্ভুক্তসংক্রান্ত রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সচিবকে।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন রিটকারী আইনজীবী ব্যারিস্টার শুকলা সারওয়াত সিরাজ। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল কাজী জিনাত হক।

পরে ব্যারিস্টার শুকলা সারওয়াত সিরাজ সাংবাদিকদের বলেন, রুল জারি করার পাশাপাশি আদালত রাজধানীতে সাততলা বা তার বেশি উচ্চতার সব ভবনে অগ্নিনির্বাপণের জন্য কী কী ব্যবস্থা রাখা হয়েছে, সে বিষয়ে একটি প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন। ঢাকার উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র, রাজউক এবং ফায়ার সার্ভিসের মহাপরিচালকের সমন্বয়ে গঠিত যৌথ কমিটিকে চার মাসের মধ্যে এ প্রতিবেদন দাখিল করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, আদালত একইসঙ্গে অগ্নিনির্বাপণে ও দুর্যোগ মোকাবিলার জন্য ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সে কত জনবল, কী পরিমাণ আধুনিক ও পর্যাপ্ত উপকরণ, যন্ত্রপাতি ও যানবাহনের সক্ষমতা রয়েছে, সে বিষয়েও একটি প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। এক মাসের মধ্যে ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সের মহাপরিচালককে এই প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

এর আগে, গতকাল রোববার (৩১ মার্চ) রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে আগুনের ঘটনা নিয়ে কয়েকটি গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন যুক্ত করে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিটটি দায়ের করেন গুলশান সোসাইটির সেক্রেটারি জেনারেল ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার শুকলা সারওয়াত সিরাজ। এই রিটের শুনানিতে আদালত এসব রুল জারি করেন।