বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থায় আইন কর্মকর্তা নিয়োগ

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ১১ এপ্রিল, ২০১৯ ৩:২৬ অপরাহ্ণ
পদক্ষেপ মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্র

পদক্ষেপ মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্র (www.padakhep.org) ১৯৮৬ সালে প্রতিষ্ঠিত জাতীয় পর্যায়ে একটি বেসরকারী সংস্থা (NGO) যা মাইক্রোক্রেডিট রেগুলেটরি অথরিটি (MRA) কর্তৃক লাইসেন্স প্রাপ্ত এবং পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশন (PKSF) এর শ্রেষ্ঠ সহযোগী সংস্থা হিসেবে পুরষ্কারপ্রাপ্ত এবং বিভিন্ন জাতীয় ও আর্ন্তজাতিক সংস্থা কর্তৃক স্বীকৃতিপ্রাপ্ত। “পদক্ষেপ” অভীষ্ট জনগোষ্ঠীর আর্থ-সামাজিক ও জীবনযাত্রার গুণগত মান উন্নয়নে অবদান রাখার লক্ষ্যে সমগ্র দেশব্যপী “সমন্বিত উন্নয়ন কৌশল (HDA)” অবলম্বন করে ক্ষুদ্র অর্থায়ন কর্মসূচী সহ শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি ও বিভিন্ন সামাজিক উন্নয়ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে। বেসরকারী এই উন্নয়ন সংস্থায় একজন আইন কর্মকর্তা নিয়োগ করা হবে। নিম্নে আবেদন করার যোগ্যতা, চাকরির দায়িত্ব ও আবেদন করার পদ্ধতি উল্লেখ করা হল-

চাকরির দায়িত্বসমূহ
সংস্থার পক্ষে সকল ধরনের লিগ্যাল নোটিশ, পিটিশন, লেটার অব অথরিটি, আবেদন প্রভৃতির খসড়া তৈরী করে ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের অনুমোদন নিয়ে ইস্যু/দাখিল করা। দেশের বিভিন্ন আদালতে দায়েরকৃত ক্রিমিনাল ও সিভিল মামলা পরিচালনা ও দ্রুত নিষ্পত্তির ব্যবস্থা গ্রহণ করা। আর্থিক অনিয়মকারী বা অর্থ আত্মসাৎকারী কর্মী ও সদস্যদের বিরুদ্ধে প্রযোজ্য সকল ধারায় মামলা দায়ের করা এবং আত্মসাৎকৃত অর্থ আদায় নিশ্চিতকরনে আইনগত/প্রশাসনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা। মামলা-মোকদ্দমা সংক্রান্ত সকল নথি, দলিল, চিঠি, তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ ও সংরক্ষণ এবং আদালতে যথাসময়ে দাখিল করা। মামলা সঙ্গে সম্পর্কিত সকল পক্ষের সাথে যোগাযোগ রাখা, আদালতে নির্ধারিত তারিখে বাদী-বিবাদী, সাক্ষী ও মামলা সংশ্লিষ্ট উকিলের উপস্থিতি নিশ্চিত করা। অভিযুক্ত ব্যক্তির বিরুদ্ধে চার্জ গঠন, সমন জারি বা গ্রেফতারি পরোয়ানা তামিল করার লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া। সংস্থার মামলা-মোকদ্দমা সংক্রান্ত খরচের বাজেট প্রস্তুত ও অনুমোদন নেয়া, ব্যয় কার্য সম্পাদন করা ও বিল ভাউচার সমন্বয় দেয়া। মামলার অগ্রগতির বিষয় কর্তৃপক্ষকে অবগত করা, মামলা নিয়মিত পর্যালোচনা করা ও মামলা পরিচালনার নিত্য নতুন কৌশল নির্ধারন করা। চলমান মামলা নিষ্পত্তির দীর্ঘসূত্রিতা দূরিকরণে উদ্যোগ গ্রহণ করা। বিভিন্ন সময়ে উদ্ভূত আইনী জটিলতা নিরসনে সংশ্লিষ্টদের প্রয়োজনীয় পরামর্শ দেয়া। চলমান মামলার ধরণ ভিত্তিক মাসিক প্রতিবেদন প্রস্তুত করা। সর্বোপরি, সংস্থার পক্ষে বিপক্ষে দায়েরকৃত মামলা-মোকদ্দমা পরিচালনার ক্ষেত্রে সংস্থার স্বার্থকে প্রাধান্য দিয়ে আইনী প্রক্রিয়ায় সমাধানের লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করা।

চাকরির ধরন : ফুল টাইম

শিক্ষাগত যোগ্যতা
আইন বিষয়ে স্নাতক (সম্মান) সহ স্নাতকোত্তর পাশ।

চাকরির প্রয়োজনীয় বিষয়সমূহ

  • বয়স সর্বনিম্ন ৩০ বছর
  • কোন প্রতিষ্ঠিত প্রতিষ্ঠানে আইন সংক্রান্ত কার্যক্রম পরিচালনায় অভিজ্ঞতা অগ্রাধীকার হিসেবে বিবেচিত হবে।
  • আবেদনকারীকে অবশ্যই বাংলাদেশ বার কাউন্সিল এর তালিকাভুক্ত উকিল হতে হবে।
  • এছাড়া বাংলাদেশের সমগ্র এলাকায় ভ্রমণ করে সংস্থার আইন সংক্রান্ত সকল কাজ সম্পাদন করতে হবে।
  • কম্পিউটার জ্ঞান থাকতে হবে, ইংরেজী ও বাংলা লেখা এবং বলায় স্বাবলীল এবং সুন্দর বাচনভঙ্গীর অধিকারী হতে হবে।

কর্মস্থল : ঢাকা

বেতন : আলোচনা সাপেক্ষ

কোম্পানীর সুযোগ সুবিধাদি : আলোচনা সাপেক্ষে।

রিজিউমি গ্রহণের উপায়
সংস্থার স্বার্থসংশ্লিষ্ট আইনী কার্যক্রমের সার্বিক দায়িত্ব পালনের জন্য একজন দক্ষ ও যোগ্য আইন কর্মকর্তা নিয়োগের লক্ষ্যে স্থায়ী বাংলাদেশী নাগরিকদের নিকট থেকে “নির্বাহী পরিচালক, পদক্ষেপ মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্র, প্রধান কার্যালয়, ঢাকা-১২০৭“ এর বরাবর দরখাস্ত আহবান করা হচ্ছে।

ক) আগ্রহী প্রার্থীদের এ-৪ সাইজের সাদা কাগজে স্বহস্তে লিখিত আবেদনপত্র ও জীবনবৃত্তান্ত (আপনাকে চিনবেন এমন দুই জন বিশিষ্ট ব্যক্তির নাম, ঠিকানা ও মোবাইল নম্বর ইত্যাদি উল্লেখ পূর্বক), সদ্য তোলা পাসপোর্ট সাইজের ৩ কপি স্পষ্ট রঙিন ছবি (ল্যাব প্রিন্ট), সকল শিক্ষা সনদের কপি, অভিজ্ঞতার সনদ/ছাড়পত্র, বার কাউন্সিলের সদস্যভুক্তির সনদের কপি, স্থায়ী ঠিকানার স্বপক্ষে নাগরিকত্ব সনদ ও জাতীয় পরিচয়পত্রের সত্যায়িত কপি সংযুক্ত সহ “নির্বাহী পরিচালক, পদক্ষেপ মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্র, প্রধান কার্যালয়, বাড়ী নং ৫৪৮, রোড নং ১০, বায়তুল আমান হাউজিং সোসাইটি, আদাবর, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭ এই ঠিকানায় সরাসরি বা ডাকযোগের মাধ্যমে পৌঁছাতে হবে। খ) খামের উপর পদের নাম এবং দরখাস্তে অভিজ্ঞতার বিশদ উল্লেখ করতে হবে। গ) শুধুমাত্র বাছাইকৃত যোগ্য প্রার্থীদের নির্বাচনী পরীক্ষার সময়সূচী দরখাস্তে প্রদত্ত মোবাইল নম্বরে অবহিত করা হবে। ঘ) চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত প্রার্থীর প্রধান অভিভাবক কর্তৃক ৩০০/- টাকার নন জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে লিখিত অঙ্গীকারনামা প্রদান করতে হবে। এছাড়া প্রার্থীর আপনজন/আত্মীয়দের মধ্য থেকে আরো দুইজন ব্যক্তিকে (সরকারী/আধা সরকারী/বেসরকারী চাকুরীজীবী) সংস্থার নির্ধারিত ফরমে গ্যারান্টার হতে হবে। ঙ) নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য কোন প্রকার টিএ/ডিএ দেয়া হবে না। চ) যে কোন আবেদনপত্র গ্রহণ/বাতিল এবং নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির শর্তাবলী সংযোজন/শিথিল করার ক্ষমতা কর্তৃপক্ষ সংরক্ষণ করেন। ছ) কোন প্রার্থী কোন ক্ষেত্রে ভুল তথ্য প্রদান অথবা সত্য গোপন করলে নিয়োগ পাবার পরও যে কোন সময় তার নিয়োগ বাতিল করার ক্ষমতা কর্তৃপক্ষ সংরক্ষণ করবেন।

আবেদনের শেষ তারিখ: এপ্রিল ১৫, ২০১৯