বাংলাদেশি গৃহকর্মী হত্যায় সৌদি আরবে গৃহকর্ত্রীর ফাঁসি

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১২:২৮ অপরাহ্ণ
বাংলাদেশি গৃহকর্মী হত্যায় সৌদি আরবে গৃহকর্ত্রীর ফাঁসি

সৌদি আরবে বাংলাদেশি গৃহকর্মী আবিরন বেগম হত্যার দায়ে গৃহকর্ত্রীর ফাঁসি দিয়েছেন দেশটির আদালত। এছাড়াও তার স্বামীকে ৩ বছর ২ মাসের কারাদণ্ড এবং তার ছেলেকে ৭ মাসের জন্য কিশোর সংশোধনাগারে রাখার নির্দেশ দেন।

গত সোমবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা যায়।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ২৪ মার্চ সৌদি আরবের রিয়াদে আবিরনের মৃত্যু হয়। যা পরবর্তীকালে হত্যাকাণ্ড বলে হাসপাতালের ফরেনসিক রিপোর্টে জানা যায়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত রোববার ১৪ ফেব্রুয়ারি সৌদির ক্রিমিনাল কোর্ট আলোচিত এই হত্যাকাণ্ডের রায় দেয়। আদালত রায়ে প্রধান আসামি গৃহকর্ত্রী আয়েশা আল জিজানীর বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্টভাবে ইচ্ছাকৃত হত্যাকাণ্ড সংঘটিত করার কারণে কিসাস (জানের বদলে জান) এর রায় দেন।

আদালত রায়ে গৃহকর্তা বাসেম সালেমের বিরুদ্ধে আলামত ধ্বংসের অভিযোগ, আবিরন বেগমকে নিজ বাসার বাইরে বিভিন্ন জায়গায় কাজে পাঠানো ও চিকিৎসার ব্যবস্থা না করায় পৃথক পৃথক অভিযোগে মোট ৩ বছর ২ মাস কারাদণ্ডের আদেশ দেন ও ৫০ হাজার সৌদি রিয়াল বা প্রায় ১১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। আদালত মামলার আরেক আসামি, ওয়ালিদ বাসেদ সালেমকে ৭ মাস কিশোর সংশোধনাগার কেন্দ্রে থাকার আদেশ দেন।

এদিকে, রিয়াদের বাংলাদেশ দূতাবাসের শ্রম কল্যাণ উইং এই বিচারকার্য ত্বরান্বিত করার ক্ষেত্রে কার্যকর ভূমিকা পালন করেছে। প্রবাসী কর্মীদের জন্য ন্যায় বিচার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সরকার বিশেষ করে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় থেকে সকল সহযোগিতা দেওয়ার কথা জনিয়েছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ।