বিচার বিভাগীয় ৪০ কর্মকর্তা চার সপ্তাহের শর্ট কোর্সে অস্ট্রেলিয়া যাচ্ছেন

প্রতিবেদক : ল'ইয়ার্স ক্লাব বাংলাদেশ
প্রকাশিত: ৩ মার্চ, ২০১৮ ১১:০১ অপরাহ্ণ
প্রতীকী ছবি

চার সপ্তাহের শর্ট কোর্সে অংশ নিতে মে মাসে অস্ট্রেলিয়া যাচ্ছেন বিচার বিভাগীয় ৪০ কর্মকর্তা। সম্প্রতি এ ৪০ জনের নাম চূড়ান্ত করেছে আইন মন্ত্রণালয়।

অস্ট্রেলিয়ার ওয়েস্টার্ন সিডনি ইউনিভার্সিটিতে আগামী ২৭ মে থেকে ২৩ জুন এ কোর্স অনুষ্ঠিত হবে। মনোনীত বিচারকরা ২৬ মে অস্ট্রেলিয়ার উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবেন। আর দেশে ফিরবেন ফিরবেন ২৪ জুন।

‘ক্যাপাসিটি বিল্ডিং অব ল’ অ্যান্ড জাস্টিস ডিভিশন ফর স্ট্রেংদেনিং সার্বডিনেট জুডিশিয়ারি’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় এ কর্মসূচি গ্রহণ করে আইন মন্ত্রণালয়।

মনোনীতরা হলেন- সিলেটের চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. সাইফুজ্জামান হিরো, কুমিল্লার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ বেগম জেবুন্নেসা, নোয়াখালীর চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট, হাইকোর্ট বিভাগের অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার রুহুল আমিন, মাগুরার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ আরাফাত হোসেন, কুমিল্লার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ নুরুন্নাহার বেগম শিউলী, তথ্য মন্ত্রণালয়ের আইন কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাইদুর রহমান গাজী, খুলনার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ রেজাউল করিম, পাবনার যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ মো. শাহাদাত হোসেন প্রামাণিক, চট্টগ্রাম অর্থ ঋণ আদালতের বিচারক (যুগ্ম জেলা জজ) মোহাম্মদ আবু হান্নান।

গোপালগঞ্জের যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ সোহেল রানা, ঢাকার পরিবেশ আদালতের বিচারক (যুগ্ম জেলা জজ) মো. শওকত হোসেন, কক্সবাজারের যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ মো. ফখরুল আবেদীন, ঢাকার যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ফেরদৌস ওয়াহিদ, রাজবাড়ীর যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ মাশফিকুল ইসলাম, হাইকোর্ট বিভাগের ডেপুটি রেজিস্ট্রার মোহাম্মদ আব্দুস সালাম, আইন মন্ত্রণালয়ের আইন ও বিচার বিভাগের সিনিয়র সহকারী সচিব মোহাম্মদ আতাউল হক, টাঙ্গাইলের যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ আল মামুন, চট্টগ্রামের যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ রহমত আলী, ফরিদপুরের অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ মাসুদ আলী।

চট্টগ্রামের যুগ্ম মেট্রোপলিটন দায়রা জজ মোহাম্মদ রশিদ তালুকদার, চট্টগ্রাম বন্দরের আইন কর্মকর্তা মুনতাসির আহমেদ, ঢাকা সিটি করপোরেশনের স্পেশাল মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট খালেদা ইয়াসমিন উর্মি, কিশোরগঞ্জের যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ এ এন এম ইলিয়াস, গাজীপুরের সিনিয়র সহকারী জজ মোকসেদা আসগর, যশোর জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার মো. সাজ্জাদুর রহমান, কক্সবাজারের চকরিয়ার সিনিয়র সহকারী জজ রাজীব কুমার বিশ্বাস, টাঙ্গাইলের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. গোলাম কিবরিয়া, চট্টগ্রামের মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার মোহাম্মদ মাসুদ পারভেজ, ফরিদপুরের সিনিয়র সহকারী জজ নওরীন আক্তার কাকন।

নরসিংদীর সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মনীষা রায়, নেত্রকোনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. আলমগীর হোসেন, ঢাকা সিটি করপোরেশনের স্পেশাল মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মেহেদী পাভেল সুইট, চট্টগ্রামের মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু সালেম মোহাম্মদ নোমান, সিলেটের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কাকন দে, ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. সরফুজ্জামান আনসারী, বাগেরহাটের সহকারী জজ সাদিয়া আফরিন, রংপুরের সহকারী জজ আশফাকুর রহমান, নোয়াখালীর সহকারী জজ কামরুল হাসান ও ফেনীর সহকারী জজ সৈয়দা মোসাদ্দেকা।