করিম ভাইয়ের মৃত্যুতে বারের সৌন্দর্য নষ্ট হয়ে গেছে : প্রধান বিচারপতি

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: 30 January, 2019 11:13 am
সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির প্রয়াত কিপার আব্দুল করিম স্মরণসভা

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির প্রয়াত কিপার আব্দুল করিম ভাইকে স্মরণ করে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন বলেছেন, করিম ভাইয়ের মৃত্যুতে বারের সৌন্দর্য নষ্ট হয়ে গেছে। তাকে ছাড়া বার শূন্য মনে হয়।

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির শহীদ শফিউর রহমান মিলনায়তনে মঙ্গলবার (২৯ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় আইনজীবীদের আয়োজনে আব্দুল করিম স্মরণসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন বলেন, ১৯৮৩ সালে আবদুল করিমের সঙ্গে পরিচয় হয়। তারপর থেকে তার মৃত্যুর সময় পর্যন্ত আমার সম্পর্ক ছিল। একইভাবে বারের সবার সঙ্গেও তার সুসম্পর্ক ছিল। তার মতো লোক পাওয়া দুস্কর।

তিনি বলেন, করিম ভাই যখন তখন বাসায় বই নিয়ে হাজির হতেন। যখন যার বই প্রয়োজন হতো তিনি তাকে বই দিতেন। বইপাগল এই করিম ভাই সবসময় সবাইকে বই বিতরণ করতেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেন, আমরা রাজনীতি করতাম, দলাদলি করতাম। কিন্তু করিম ভাই সবার কাছে সমান ছিলেন। সবাইকে তিনি ভালোবেসে আপন করেছেন। তার কাছ থেকে কেউ কোনোদিন খারাপ আচরণ পায়নি। তিনি সবার বিপদে পাশে দাঁড়িয়েছেন। এই সুপ্রিম কোর্ট অঙ্গন ছিল তার পরিবার। এটাকে তিনি পরিবারের মতো মনে করতেন।

আব্দুল করিমের স্মৃতিচারণ করে বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম বলেন, তিনি দরদী মানুষ ছিলেন। প্রাতিষ্ঠানিক কোনো পড়াশোনা তিনি করেননি। কিন্তু তারপরও তিনি স্বশিক্ষিত হয়ে তার সৎ গুণাবলি দিয়ে আইনজীবীদের মন জয় করেছেন। তিনি অনেক আইনজীবীকে আর্থিক সহায়তাও দিয়েছেন।

সাবেক বিচারপতি খাদেমুল ইসলাম বলেন, আইনজীবীদের আন্দোলন-সংগ্রামে আব্দুল করিম সবসময় সরব ছিলেন।

জ্যেষ্ঠ আইনজীবী পরিমল চন্দ্র গুহের সভাপতিত্বে এবং অ্যাডভোকেট আবুল খায়েরের সঞ্চালনায় স্মরণসভায় অন্যান্যের মধ্যে আরও বক্তব্য দেন বার কাউন্সিলের ভাইস চেয়ারম্যান ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন, সাবেক বিচারপতি নজরুল ইসলাম চৌধুরী, সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন ও সমিতির সম্পাদক ব্যারিস্টার এ এম মাহবুব উদ্দিন খোকন।

স্মরণসভায় সভায় আপিল বিভাগ ও হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতিসহ বারের জ্যেষ্ঠ আইনজীবীরাও উপস্থিত ছিলেন।