গতবার এমসিকিউতে উত্তীর্ণরা সরাসরি লিখিত পরীক্ষা দিতে পারবে

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২:০৪ অপরাহ্ণ
বার কাউন্সিল লোগো

সর্বশেষ ২০১৭ সালের অনুষ্ঠিত আইনজীবী তালিকাভুক্তির লিখিত পরীক্ষায় অনুত্তীর্ণদের আসন্ন এমসিকিউ পরীক্ষা অংশগ্রহণ করতে হবে না বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ বার কাউন্সিল।

আজ রোববার (১৫ সেপ্টেম্বর) আইনজীবীদের সনদ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ও দেশের আইন পেশার সর্বোচ্চ সংস্থা বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের ওয়েবসাইটে সংস্থার সচিব মোঃ রফিকুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত বৃহস্পতিবার (১২ সেপ্টেম্বর) অনুষ্ঠিত বার কাউন্সিল সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক যে সকল পরিক্ষার্থী ২০১৭ সালের অনুষ্ঠিত আইনজীবী তালিকাভুক্তির এমসিকিউ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছে এবং লিখিত পরীক্ষায় অনুউত্তীর্ণ হয়েছে তাদের আসন্ন এমসিকিউ পরীক্ষা দিতে হবে না। তারা শুধুমাত্র আসন্ন লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে।

বিজ্ঞপ্তি দেখুন এখানে

উল্লেখ্য, অ্যাডভোকেটশীপ পরীক্ষার নিয়ম সংশোধন করেছে বাংলাদেশ বার কাউন্সিল। এখন থেকে আইনজীবী তালিকাভুক্তির প্রিলিমিনারি (MCQ) পরীক্ষায় পাশ করলেই পর পর দুইবার লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করা যাবে। ২০১৮ সালের ১৯ ডিসেম্বর আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে যুগ্ম সচিব বিকাশ কুমার সাহা স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, আইনজীবী হিসেবে তালিকাভুক্ত হতে বার কাউন্সিলের নির্ধারিত ডিগ্রী অর্জন সাপেক্ষে প্রত্যেক প্রার্থীকে প্রিলিমিনারি (MCQ), লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় পাশ করতে হবে। এক ঘণ্টার এমসিকিউ পরীক্ষায় ১০০ নম্বরের মধ্যে ন্যূনতম ৫০ নম্বর পেলে উক্ত প্রার্থী লিখিত পরীক্ষায় পর পর দুইবার অংশগ্রহণের যোগ্যতা অর্জন করবেন।

তবে কবে থেকে এ নিয়ম কার্যকর হবে সে বিষয়ে পরিক্ষার্থিদের মধ্যে সৃষ্ট দ্বিধাদ্বন্দের অবসান হল বার কাউন্সিলের আজকের বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে।