পদচ্যুতির হাত থেকে রেহাই পেলেন ট্রাম্প

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ১২:৫৪ অপরাহ্ণ
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প

রিপাবলিক নিয়ন্ত্রিত যুক্তরাষ্ট্র সংসদের উচ্চকক্ষ সিনেটে অভিশংসন বিচারে রক্ষা পেলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আজ বৃহস্পতিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম এ তথ্য জানায়।

এর আগে, বুধবার (৫ ফেব্রুয়ারি) রাতে সিনেটে ট্রাম্পের অভিশংসনের শুনানি হয়। তার বিরুদ্ধে দু’টি অভিযোগ আনা হয়েছিল- প্রেসিডেন্ট ক্ষমতার অপব্যবহার ও কংগ্রেসের কাজে বাধা সৃষ্টি। প্রথম অভিযোগের পক্ষে পড়েছে ৪৮টি ভোট এবং বিপক্ষে ৫২টি। দ্বিতীয় অভিযোগের পক্ষে পড়েছে ৪৭টি ভোট এবং বিপক্ষে ৫৩টি ভোট। প্রেসিডেন্টের পদ থেকে ট্রাম্পকে সরাতে হলে সিনেটের ১০০ আসনের মধ্য থেকে দুই তৃতীয়াংশ ভোট দরকার হতো।

বুধবার ঐতিহাসিক এ ভোটের মাধ্যমে পদচ্যুতির হাত থেকে রেহাই পেলেন যুক্তরাষ্ট্রের ৪৫তম প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। ভোটের মাধ্যমে দোষী সব্যস্ত হলে তাকে ক্ষমতা ছেড়ে দায়িত্ব বুঝিয়ে দিতে হতো ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্সকে।

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথম প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিশংসন থেকে অব্যাহতি পেয়ে দ্বিতীয় মেয়াদে নির্বাচনে লড়তে যাচ্ছেন ট্রাম্প।

রিপাবলিকানদের মধ্যে উটাহর সিনেটের মিট রোমনে প্রথম অভিযোগে ট্রাম্পের বিপক্ষে ভোট দিয়েছেন। অন্যদিকে বেশ কয়েকজন রিপাবলিকান সিনেটর সাম্প্রতিক সময়ে ট্রাম্পের আচরণের সমালোচনা করলেও সেটি তাকে অভিশংসনের পর্যায়ে নেওয়ার মতো কিছু নয় বলে মনে করেন।

ভোটাভুটিতে অভিযোগ নাকচ হওয়ার পর হাউস স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি বলেন, ট্রাম্প আমেরিকার গণতন্ত্রের জন্য ‘হুমকি’ এবং সিনেট রিপাবলিকানরা আইনবিরোধিতা একটি সাধারণ বিষয় বানিয়ে ফেলেছেন।

নির্বাচনের বছরের শুরুতেই গুরুতর অভিযোগে প্রেসিডেন্টের এ অভিশংসন দ্বিধাবিভক্ত করে রেখেছিল যুক্তরাষ্ট্রকে। তবে ট্রাম্প শুরু থেকেই তার বিরুদ্ধে আনা সব অভিযোগ অস্বীকার করে আসছিলেন।