লকডাউন পরিস্থিতিতে পারিবারিক নির্যাতনের ঘটনাকে ভার্চুয়াল কোর্টের আওতাভুক্ত করার সুপারিশ

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ২৯ এপ্রিল, ২০২০ ৮:১৬ অপরাহ্ণ
প্রতীকী ছবি

বর্তমান লকডাউন পরিস্থিতিতে পারিবারিক সহিংসতা ও নির্যাতনের ঘটনা বৃদ্ধি পাওয়ার বিষয়টিকে প্রস্তাবিত ভার্চুয়াল কোর্টের আওতাভুক্ত করার সুপারিশ করেছে পারিবারিক সহিংসতা প্রতিরোধ জোট এবং রেইপ ল রিফর্ম কোয়ালিশন।

মঙ্গলবার (২৮ এপ্রিল) সরকারি ও বেসরকারি পর্যায়ে সমন্বয় বৃদ্ধিতে অনলাইনে একটি মতবিনিময় সভায় এই সুপারিশ করেন বক্তারা। বাংলাদেশ লিগ্যাল এইড অ্যান্ড সার্ভিসেস ট্রাষ্ট (ব্লাস্ট) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানিয়েছে।

আলোচকরা অন্য যেসব সুপারিশ করেন তার মধ্যে আছে—বাংলাদেশ পুলিশের অনলাইনে জিডি দায়ের প্রক্রিয়া সক্রিয় করা এবং সারাদেশে এই সেবা চালুর ব্যবস্থা করা,  নারী ও শিশুর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে পারিবারিক সহিংসতা প্রতিরোধ জোট এবং রেইপ ল রিফর্ম কোয়ালিশনের সঙ্গে যুক্ত সব হটলাইন এবং হেল্পলাইন নম্বর একত্রে একটি তালিকা তৈরি করে বিভিন্ন মাধ্যমে প্রকাশ করা, করোনা সংক্রমণের ঝুঁকির কারণে সরকারি ও বেসরকারি শেল্টারহোমগুলোতে বর্তমানে আশ্রয়ের জন্য কোনও ভিকটিমকে গ্রহণ করা হচ্ছে না বিধায়, ভিকটিমদের সুরক্ষার জন্য সেখানে করোনাভাইরাস টেস্টের ব্যবস্থা করা, মহিলা ও শিশু-বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনলাইন ও টেলি কাউন্সেলিংয়ের নম্বর প্রচার করে এই বিষয়ে সর্বোচ্চ সেবা নিশ্চিত করা, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের পাশাপাশি পারিবারিক সহিংসতা বা নির্যাতন বন্ধের বিষয়টিকে গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করা এবং প্রান্তিক জনগোষ্ঠী বিশেষ করে প্রতিবন্ধী নারী এই সময়ে নির্যাতনের শিকার হলে বিষয়টি অতি গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করা।

অনলাইন আলোচনাটি ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের ড. ফস্টিনা পেরেরা এবং লিগ্যাল এমপাওয়ারমেন্ট অ্যান্ড সাসটেইনেবল ডেভেলপমেন্ট, সেন্টার ফর পিস অ্যান্ড জাস্টিসের সঞ্চালনায় সভায় মহিলা ও শিশু-বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মাল্টি সেক্টরাল প্রোগ্রাম, উইক্যান, ব্র্যাক, নারীপক্ষ, আইন ও সালিশ কেন্দ্র, এসিড সারভাইভারস ফাউন্ডেশন, জিআইজেড, বিএনডাব্লিউএলএ, ব্লাস্ট, ডাব্লিউডিডিএফ এবং ওয়াইডাব্লিউসিএ এর প্রতিনিধিসহ প্রায় ৩৫ জন এই অনলাইন আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন এবং মূল্যবান মতামত প্রদান করেন।

ব্লাস্টের অ্যাডভোকেসি অ্যান্ড ক্যাপাসিটি বিল্ডিং অ্যাডভাইজার মো. তাজুল ইসলাম বর্তমান অবস্থা ও প্রেক্ষাপট তুলে ধরেন। আইন ও সালিশ কেন্দ্রের সিনিয়র ডেপুটি ডিরেক্টর নীনা গোস্বামী, এইচ আর এল এস এবং স্যোশাল কমপ্লায়েন্সের পরিচালক জেনেফা জব্বার, জিআইজেডের রুল অব ল’র অপারেশন পরিচালক তাহেরা ইয়াসমিন লকডাউন অবস্থায় নারী ও শিশুর প্রতি সহিংসতায় সেবা পেতে প্রতিবন্ধকতা ও করণীয় বিষয়ে আলোচনা করেন।

মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের নারী নির্যাতন প্রতিরোধকল্পে মাল্টি সেক্টরাল প্রোগ্রামের সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার সাবিনা সুলতানা, নারীপক্ষের সদস্য রীতা দাশ রায়সহ আরও অনেকে সরকারি ও বেসরকারি পর্যায়ে করণীয় বিষয় মতামত দেন।

ব্লাস্টের অনারারি নির্বাহী পরিচালক সারা হোসেন আলোচনার সার সংক্ষেপ করেন এবং নারী ও শিশুর প্রতি পারিবারিক সহিংসতা এবং নির্যাতন বন্ধে সবাইকে একত্রে দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়ার বিষয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।