আইনি সহায়তা মানুষকে রক্ষা করতে পারে: বিচারপতি বোরহান উদ্দিন

প্রতিবেদক : বার্তা কক্ষ
প্রকাশিত: ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ১:১১ অপরাহ্ণ
বিজিসি ট্রাস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর আইন বিভাগের নবীনবরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠান

আইনি সহায়তাই একজন মানুষকে রক্ষা করতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি বোরহান উদ্দিন। তিনি বলেন, দেশে আইনের শাসন ও গণমানুষের ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে হলে আইনের শিক্ষার্থীদের অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে।

চট্টগ্রামে বিজিসি ট্রাস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ এর আইন বিভাগের নবীনবরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠান প্রধান অতিথির বক্তব্যে মঙ্গলবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) তিনি এ মন্তব্য করেন।

বিচারপতি বোরহান উদ্দিন বলেন, মুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার আফসার উদ্দিন আহমদ নিজেকে মানুষের জন্য উৎসর্গ করেছেন বলেই এই প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব হয়েছে। আর এই বিজিসি ট্রাস্টকে এগিয়ে নেওয়ার দায়িত্ব শিক্ষার্থীদের। আইনি সহায়তাই একজন মানুষকে রক্ষা করতে পারে। নিজেদেরকে দেশপ্রেমিক, দক্ষ সুনাগরিক হিসেবে গড়ে তোলার মাধ্যমে সরকারকে সহযোগিতা করতে হবে।

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে হাইকোর্টের এই বিচারপতি বলেন, জ্ঞানের ব্যাপক অনুশীলনের মাধ্যমে নিজেকে একজন আইনজ্ঞ ও সুনাগরিক হিসেবে তৈরি করতে হবে। দেশে আইনের শাসন, গণমানুষের ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে হলে আইনের শিক্ষার্থীদের অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। তাই শিক্ষার্থীদের এমনভাবে নৈতিক মূল্যবোধ, দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে জ্ঞান অর্জন করতে হবে যাতে তারা ভবিষ্যতে জাতির নেতৃত্ব দিতে সক্ষম হবে। পেশা হিসেবে নয় একজন আইনের সেবক হিসেবে নিজেকে তৈরি করে মানুষের জন্য কাজ করতে হবে। তাহলেই আপনার পেশা এবং জীবন সমৃদ্ধ হবে।

ইউনিভার্সিটির আইন বিভাগের চেয়ারম্যান নাজনীন আক্তারের সভাপতিত্বে বিজিসি বিদ্যানগরের বঙ্গবন্ধু ফ্রিডম স্কয়ারে আয়োজিত অনুষ্ঠানে অতিথি ছিলেন উপাচার্য প্রফেসর ড. সরোজ কান্তি সিংহ হাজারী। বিশেষ অতিথি ছিলেন বিজিসি ট্রাস্ট বোর্ড অব ট্রাস্টিজের সদস্য আফরিন আহমদ হাসনাইন, চবি আইন অনুষদের ডীন প্রফেসর এবিএম আবু নোমান, বিজিসি ট্রাস্ট ইউনিভার্সিটির ট্রেজারার প্রফেসর আ ন ম ইউসুফ চৌধুরী, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক প্রফেসর ড. নারায়ণ বৈদ্য, রেজিস্ট্রার এএফএম আখতারুজ্জামান কায়সার। নবাগত ছাত্রছাত্রীদের পক্ষে বক্তব্য দেন এ ইউ আহমেদ, বিদায়ী ছাত্র-ছাত্রীদের পক্ষে বক্তব্য দেন অনামিকা দে।

প্রফেসর ড. সরোজ কান্তি সিংহ হাজারী বলেন, আইন হচ্ছে একটি সম্মানিত পেশা, আইন বিভাগের ছাত্র-ছাত্রীরা এখান থেকে অর্জিত জ্ঞানের মাধ্যমে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ে দেশ ও মানুষের কল্যাণে কাজ করতে হবে।

বোর্ড অব ট্রাস্টিজের সদস্য আফরীন আহমদ হাসনাইন বলেন, এই প্রতিষ্ঠান আপনাদের, এই প্রতিষ্ঠানকে এগিয়ে নেওয়ার পাশাপাশি আাপনাদের দেশ গঠনেও বিশেষ ভূমিকা পালন করতে হবে। আর আইন বিভাগের ছাত্র-ছাত্রীরাই এক একজন দূত হিসেবে আগামীর সুন্দর বাংলাদেশ গড়ার জন্য এগিয়ে আসবে।

আইন বিভাগের প্রভাষক আসমা আল আমিন ও সিদরাতুল মুনতাহা এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠান শেষে আইন বিভাগের ছাত্র-ছাত্রীরা সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করেন।